যশোরে হত্যার উদ্দেশ্যে বৃদ্ধকে মারপিট : জমির ধান জোর পূর্বক কেটে নিয়েছে দুর্বৃত্তরা

যশোর : যশোরের ঝিকরগাছার বাঁকড়ায় এক বৃদ্ধের জমির ধান জোর পূর্বক কেটে নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা। শুধু তাই নয়, ওই বৃদ্ধ ও তার ভাইকে বেধড়ক মারপিট করা হয়েছে। মুমূর্ষ অবস্থায় যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বর্তমানে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জালড়ছে ওই বৃদ্ধ ও তার ভাই। হত্যার উদ্দেশ্যে এই হামলা করা হয়েছে বলে দাবি জখম পরিবারটির।
হাসপাতাল সূত্র জানা গেছে, ঝিকরগাছা উপজেলার বাঁকড়া খাটবাড়িয়া গ্রামের বৃদ্ধ আলহাজ্ব আজিজুল হক তার জমির ধান কাটতে যায়। এসময় ওই গ্রামের দুর্বৃত্ত মৃত লোকমান মাস্টারের ছেলে রিপন, তোতা ও মুকুলসহ ডাকাতিসহ একাধিক মামলার আসামি চাতক ও সবুজ তাদের উপর হামলা করে। আজিজুল হকের ভাই মোজাম্মেল হক ঠেকাতে আসলে তার উপরও হামলা করে। এসময় আত্মচিৎকার দিলে হামলাকারীরা তাদেরকে রক্তাক্ত অবস্থায় ফেলে পালিয়ে যায়। পরে গ্রামবাসী তাদেরকে উদ্ধার করে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে।


হাসপাতালে কথা হয় বৃদ্ধ আজিজুল হকের ভাই আলহাজ্ব ইমামুল হকের সাথে। তিনি বলেন, হামলাকারীরা খুবই দুর্ধৃর্ষ। তারা খুবই খারাপ মানুষ। তারা আমাদের জমি দখল নিতে চাই। এর আগেও তারা বেশ কয়েকবার আমাদের উপর হামলা চালিয়েছে। তাদের বিষয়ে আমরা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছি।
হামলা বিষয়ে জানতে চাইলে আজিজুল হকের ছেলে হুমায়ূন কবীর বলেন, হামলাকারী চাতক ও সুবজ ডাকাত। তারা ডাকাতির মামলার আসামি। এসব ডাকাতদের সাথে এক হয়ে রিপন, তোতা ও মুকুল আমার বাবাকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা করে। আমার বাবাকে হত্যা করে আমাদের জমি দখল নিতে চায়। ওরা আমাদেরকে বিভিন্ন সময় হুমকি দিয়ে আসছে।
যোগাযোগ করা হলে ঝিকরগাছা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুর রাজ্জাক বলেন, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। আসামি গ্রেফতার করা হয়েছে।