কেশবপুরে ছাত্রলীগ নেতা আজিজ গ্রেফতার : ৩দিন পর আদালতে সোপার্দ

যশোর : যশোবেরর কেশবপুর উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম আহবায়ক আব্দুল আজিজকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তিন দিন আগে (২৭ জুলাই) গ্রেফতার করার পর আজ বুধবার (২৯) জুলাই তাকে আদালতে পাঠায়। তবে পুলিশ আজিজকে আজ কেশবপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে দাবি করেছে। গ্রেফতার আব্দুল আজিজ উপজেলা ব্রক্ষ্মণকাঠি গ্রামের খন্দকার রফিকুজ্জামানের ছেলে।
আব্দুল আজিজের বড় ভাই শরিফুল ইসলাম জানান, ২৭ জুলাই সন্ধ্যা সাতটার দিকে তার ছোট ভাই আব্দুল আজিজকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। আমরা খোঁজ নিয়ে জানতে পারি আমার ভাইকে থানা হাজতে আটক রাখা হয়েছে। পরে তাকে দুই দিন থানা হাজতে আটকে রাখা হয়। আজ তাকে একটি পেন্ডিং ডাকাতি মামলায় চালান দিয়েছে।
তিনি বলেন, পুলিশ পরিকল্পিতভাবে তার ভাইকে মামলায় ফাঁসিয়েছে। রাজনৈতিকভাবে হেয় করতে প্রতিপক্ষরা পুলিশকে ব্যবহার করে আমার ভাইর নামে মিথ্যা-সাজানো মামলা দিয়েছে।
এদিকে, আজিজকে গ্রেফতারের পর কেশবপুরের রাজনৈতিক অঙ্গনে মিশ্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে। নাম প্রকাশ না করা শর্তে কয়েকজন নেতা বলেন, কেশবপুরে রাজনীতিতে নতুন মেরুকরণ সৃষ্টি হয়েছে। তারই অংশ হিসেবে আব্দুল আজিজকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশ এখন নতুনদের কথা শোনছে।
কেশবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জসিম উদ্দিন বলেন, আব্দুল আজিজ একটি সন্ত্রাসী বাহিনীর প্রধান। তার নামে থানায় নয়টি মামলা রয়েছে। আজ (বুধবার) কেশবপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে।