প্রতিবন্ধী গৃহবধূ ধর্ষণকালে আটক পরে ধর্ষককে রাজনৈতিক পরিচয়ে ছিনতাই

এ আলী, বেনাপোল : যশোরের শার্শার সেতাই-আমলাই গ্রামের এক শারীরিক প্রতিবন্ধী গৃহবধূ (৩৩) ধর্ষণের শিকার হয়। এ ঘটনায় শুক্রবার শার্শা থানায় মামলা হয়েছে।
পরিবার ও এলাকাবাসি সূত্রে জানা যায়, সেতাই-আমলাই গ্রামে শারীরিক প্রতিবন্ধী ওই গৃহবধূ শুক্রবার ভোররাতে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘরের বাইরে বের হলে একই গ্রামের নুরালী মোড়লের ছেলে আব্দুল গফফার (৪০) তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। ধর্ষিতার চিৎকারে তার স্বামী ও স্থানীয়রা হাতে নাতে ধর্ষককে আটক করে। পরে রাজনৈতিক পরিচয়দানকারী প্রভাবশালী মহলসহ ধর্ষকের ভাইয়েরা এসে ধর্ষিতার আত্মীয় স্বজনকে মারধর করে। এ সময় জোরপূর্বক ধর্ষণকারীকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়। বিষয়টি জানাজানি হলে ধর্ষিতার পরিবারকে হত্যা করার হুমকিও দেয় তারা। পরে প্রতিবন্ধী ওই গৃহবধূ পালিয়ে এসে থানায় মামলা করে। এর পর থেকে নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছে গৃহবধূর পরিবার।
শার্শা থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বদরুল আলম খান জানান, শারীরিক প্রতিবন্ধী এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা হয়েছে। আসামিকে আটকের জন্য অভিযান চলছে।