আন্তর্জাতিক মাতৃভাষায় বেনাপোলে দু-বাংলার ভাষা প্রেমীদের মিলন মেলা

এ আলী, বেনাপোল :
ভাষার টান আর মনের আবেগে কোভিড-১৯ কে উপেক্ষিত করে স্বল্প পরিসরে হলেও প্রতি বছরের ন্যায় এবারও রবিবার সকালে বসেছে বেনাপোল চেকপোষ্ট জিরো পয়েন্টে দু-বাংলার ভাষা প্রেমীদের মিলন মেলা। এ আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব একুশে মঞ্চে বসে এ দু-বাংলার মিলন মেলা। সীমান্তের জিরো পয়েন্টে দু-বাংলার ভাষা প্রেমী মানুষদের মিলন মেলা উপলক্ষে যৌথ ভাবে নির্মাণ করা হয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব একুশে মঞ্চ। তবে এবার বাংলাদেশ অংশে কোন অনুষ্ঠান হচ্ছে না। দু’বাংলার মিলন মেলার আয়োজন করেছেন দু-বাংলার আন্তর্জার্তিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন পরিষদ। তবে করোনা ভাইরাসের কারণে এবার মিলন মেলা অনুষ্ঠান স্বল্প পরিসরে করা হয়েছে। হাজার হাজার বাংলাভাষা প্রেমী মানুষ প্রাণের আবেগে ছূটে আসে মাতৃভাষা দিবস উদযাপনে। ছোট আকারে নো-ম্যান্স ল্যান্ডে নির্মাণ করা হয়েছে অস্থায়ী শহীদ বেদি। দু’দেশের রাজনৈতিক, সামাজিক নেতৃবৃন্দ বেলা সাড়ে ১১ টায় অস্থায়ী শহীদ বেদিতে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। বাংলাদেশ থেকে ১০০ জন প্রতিনিধি অংশ গ্রহণ করেছেন ভারতীয় একুশের অনুষ্ঠানে।
বনগাঁ পৌরসভা প্রশাসক শ্রী শংকর আঢ্য বলেন, বাংলার দামাল ছেলেরা ঢাকার রাজপথে বাংলাভাষার জন্য নিজেকে আত্ম বলিদান করে বিশ^ দরবারে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা হিসাবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন। বাঙালী জাতির কাছে আজ ২১ মানে আবেগ, বিবেক, একটা নাড়ীর টানে দু-বাংলার মানুষ একত্রে মিলিত হয়ে একে অপরের ভ্রাতৃত্তের বন্ধনে আবদ্ধ হই।
স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় প্রতিমন্ত্রী শ্রী স্বপন ভট্টাচার্য এমপি বলেন, বাঙালী জাতির আবেগের, শ্রদ্ধার, অর্জনের দিনে এপার বাংলা ওপার বাংলার মানুষ আজ ঐক্যবদ্ধভাবে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে একাকার হয়ে মেরুবন্ধনের পরিচয় দিয়েছে।